সিলেটে প্রতিবেশীর নতুন বউ দেখার পর এক কলেজ ছাত্রীর আত্মহত্যা

প্রতিবেশীর নতুন বউ দেখে এসেই আত্মহত্যা করেছেন সিলেটের বিয়ানীবাজারে এক কলেজ ছাত্রী। কলেজছাত্রীর সানজিদা ইয়াসমিন শাওনের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেছে পুলিশ।

কলেজ ছাত্রী শাওন আত্মহত্যার নেপথ্যে থাকা রহস্য উদঘাটনে তদন্ত শুরু করেছে স্থানীয় থানা পুলিশ। নিহত সানজিদা ইয়াসমিন শাওন (১৮) পৌরশহরের শ্রীধরা এলাকার ফয়জুল আলমের কন্যা। শাওন বিয়ানীবাজার সরকারি কলেজ থেকে এবার এইচএসসি পরীক্ষা দিয়েছিলেন।

বিয়ানীবাজার থানার ওসি হিল্লোল রায় বলেন সে কী জন্য আত্মহত্যা করেছেন, তা এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তবে পুলিশ পুরো বিষয়টি তদন্তক করে দেখছে। স্থানীয় সূত্র জানায়,

গত মঙ্গলবার (২১ ডিসেম্বর) দুপুরে এক প্রতিবেশির নতুন বউ দেখতে যান শাওন। এরপর বাড়ির লোকজনকে বলে ছাদে উঠেন। কিছুক্ষণ পর গলায় ফাঁস দেওয়া অবস্থায় ছাদ থেকে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এহেন আত্মহত্যার ঘটনায় এলাকা চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছে।

প্রতিবেশীর নতুন বউ দেখে এসেই আত্মহত্যা করেছেন সিলেটের বিয়ানীবাজারে এক কলেজ ছাত্রী। কলেজছাত্রীর সানজিদা ইয়াসমিন শাওনের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেছে পুলিশ।

কলেজ ছাত্রী শাওন আত্মহত্যার নেপথ্যে থাকা রহস্য উদঘাটনে তদন্ত শুরু করেছে স্থানীয় থানা পুলিশ। নিহত সানজিদা ইয়াসমিন শাওন (১৮) পৌরশহরের শ্রীধরা এলাকার ফয়জুল আলমের কন্যা। শাওন বিয়ানীবাজার সরকারি কলেজ থেকে এবার এইচএসসি পরীক্ষা দিয়েছিলেন।

বিয়ানীবাজার থানার ওসি হিল্লোল রায় বলেন সে কী জন্য আত্মহত্যা করেছেন, তা এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তবে পুলিশ পুরো বিষয়টি তদন্তক করে দেখছে। স্থানীয় সূত্র জানায়,

গত মঙ্গলবার (২১ ডিসেম্বর) দুপুরে এক প্রতিবেশির নতুন বউ দেখতে যান শাওন। এরপর বাড়ির লোকজনকে বলে ছাদে উঠেন। কিছুক্ষণ পর গলায় ফাঁস দেওয়া অবস্থায় ছাদ থেকে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এহেন আত্মহত্যার ঘটনায় এলাকা চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছে।

প্রতিবেশীর নতুন বউ দেখে এসেই আত্মহত্যা করেছেন সিলেটের বিয়ানীবাজারে এক কলেজ ছাত্রী। কলেজছাত্রীর সানজিদা ইয়াসমিন শাওনের লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেছে পুলিশ।

কলেজ ছাত্রী শাওন আত্মহত্যার নেপথ্যে থাকা রহস্য উদঘাটনে তদন্ত শুরু করেছে স্থানীয় থানা পুলিশ। নিহত সানজিদা ইয়াসমিন শাওন (১৮) পৌরশহরের শ্রীধরা এলাকার ফয়জুল আলমের কন্যা। শাওন বিয়ানীবাজার সরকারি কলেজ থেকে এবার এইচএসসি পরীক্ষা দিয়েছিলেন।

বিয়ানীবাজার থানার ওসি হিল্লোল রায় বলেন সে কী জন্য আত্মহত্যা করেছেন, তা এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তবে পুলিশ পুরো বিষয়টি তদন্তক করে দেখছে। স্থানীয় সূত্র জানায়,

গত মঙ্গলবার (২১ ডিসেম্বর) দুপুরে এক প্রতিবেশির নতুন বউ দেখতে যান শাওন। এরপর বাড়ির লোকজনকে বলে ছাদে উঠেন। কিছুক্ষণ পর গলায় ফাঁস দেওয়া অবস্থায় ছাদ থেকে তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এহেন আত্মহত্যার ঘটনায় এলাকা চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছে।

About admin

Check Also

সেপ্টেম্বর থেকে দেশে আর কোনো লোডশেডিং থাকবে না: পরিকল্পনামন্ত্রী

আগামী সেপ্টেম্বর মাস থেকে দেশে আর কোনো লোডশেডিং থাকবে না বলে জানিয়েছেন পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ …

Leave a Reply

Your email address will not be published.