আমার অবস্থা গরিবের বউ, সবার ভাবির মতো: শামীম ওসমান

নারায়ণগঞ্জ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে নিজেকে নিয়ে আলোচনার কারণ জানতে চেয়ে আলোচিত সংসদ সদস্য এ কে এম শামীম ওসমান বলেছেন, ‘এখন আমার অবস্থা গরিবের বউ, সবার ভাবির মতো।

ও বলে আমি তার, সে বলে আমি তার।’ সোমবার দুপুরে সাম্প্রতিক নানা ইস্যু নিয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এমন মন্তব্য করেন তিনি। শামীম ওসমান বলেন, ‘নির্বাচন এলেই আমাকে নিয়ে আলোচনা শুরু হয়। নির্বাচন এলে শামীম ওসমানই কেন বারবার ‘সাবজেক্ট’ হন?

নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের এই সংসদ সদস্য বলেন, কোনো দল-মতের কারণে আমি রাজনীতিতে আসিনি। রাজনীতি করতে এসেছি জাতির পিতার হত্যাকারীদের বিচারের দাবিতে। রাজনীতি করতে এসেছি বঙ্গবন্ধুকে ভালোবেসে। আমি নৌকার বিরুদ্ধে না, নৌকা প্রতীক আমাদের রক্ত দিয়ে কেনা।

আজ থেকে নৌকার হয়ে মাঠে নামলাম। নারায়ণগঞ্জের এই আওয়ামী লীগ নেতা বলেন, ছাত্রলীগ, মহিলা লীগ বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করেছে। তারা আমার কাছে এসেছে, আমি তাদের আপ্যায়ন করেছি। টু বি অনেস্ট, আমি তখন নৌকার জন্য কাজ করিনি। আজ থেকে নৌকার পক্ষে নামলাম।

আওয়ামী লীগের মেয়রপ্রার্থী ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভীর পক্ষে কাজ না করায় নারায়ণগঞ্জ মহানগর ছাত্রলীগের কমিটি ভেঙে দেওয়া হয়েছে। বিষয়টির দিকে ইঙ্গিত করে শামীম ওসমান বলেন, সামনে যে দিন আসছে, কঠিন পরীক্ষা দিতে হবে। ছাত্রলীগের মনে কষ্ট দিয়েন না।

দুঃসময়ে তারাই এগিয়ে এসেছিল। নির্বাচন ধমক দিয়ে হয় না। একে-অপরকে দোষারোপ করে নির্বাচন হয় না। সব রাগ অভিমান ছেড়ে দিয়ে কাজ করতে হবে। সবার ঘরে ঘরে যেতে হবে। এই ঘাঁটি নৌকার, এ মাটি আওয়ামী লীগের। জয় আমাদের হবেই।

নারায়ণগঞ্জে নৌকাকে ডুবিয়ে দেওয়া হবে বলে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী তৈমূর আলম খন্দকার যে মন্তব্য করেছিলেন সংবাদ সম্মেলনে তার জবাব দেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের আলোচিত এই সংসদ সদস্য। তৈমূরকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, ‘আপনি নিজের প্রচারণা ঠিকমতো করেন।

আমাদের কোনো সমস্যা নেই। কিন্তু আপনি বলেছেন- নৌকা ডুবিয়ে দেবেন। নারায়ণগঞ্জ বিএনপি-জামায়াতের ঘাঁটি না। এখানকার মাটি ও মানুষ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার দলের পক্ষে। এখানে নৌকা ডোবানোর মতো এত শক্তি কারও আছে বলে আমার মনে হয় না।’

আওয়ামী লীগের মেয়রপ্রার্থী ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভীর পক্ষে কাজ না করায় নারায়ণগঞ্জ মহানগর ছাত্রলীগের কমিটি ভেঙে দেওয়া হয়েছে। বিষয়টির দিকে ইঙ্গিত করে শামীম ওসমান বলেন, সামনে যে দিন আসছে, কঠিন পরীক্ষা দিতে হবে। ছাত্রলীগের মনে কষ্ট দিয়েন না।

দুঃসময়ে তারাই এগিয়ে এসেছিল। নির্বাচন ধমক দিয়ে হয় না। একে-অপরকে দোষারোপ করে নির্বাচন হয় না। সব রাগ অভিমান ছেড়ে দিয়ে কাজ করতে হবে। সবার ঘরে ঘরে যেতে হবে। এই ঘাঁটি নৌকার, এ মাটি আওয়ামী লীগের। জয় আমাদের হবেই।

নারায়ণগঞ্জে নৌকাকে ডুবিয়ে দেওয়া হবে বলে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী তৈমূর আলম খন্দকার যে মন্তব্য করেছিলেন সংবাদ সম্মেলনে তার জবাব দেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের আলোচিত এই সংসদ সদস্য। তৈমূরকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, ‘আপনি নিজের প্রচারণা ঠিকমতো করেন।

আমাদের কোনো সমস্যা নেই। কিন্তু আপনি বলেছেন- নৌকা ডুবিয়ে দেবেন। নারায়ণগঞ্জ বিএনপি-জামায়াতের ঘাঁটি না। এখানকার মাটি ও মানুষ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার দলের পক্ষে। এখানে নৌকা ডোবানোর মতো এত শক্তি কারও আছে বলে আমার মনে হয় না।’

About admin

Check Also

আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে আসছেন সোহেল তাজ

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের আসন্ন কাউন্সিল অধিবেশনে তানজিম আহমদ সোহেল তাজ দলীয় নেতৃত্বে আসছেন বলে আসা …

Leave a Reply

Your email address will not be published.