বেডরুমে খাটের নীচ থেকে হটাৎই বেরিয়ে আসল সবুজ রঙের বিষধর সাপ, রেগে উঠলো ফোঁস করে, ভিডিও ভাইরাল

বর্তমান এই আধুনিক যুগে সবার হাতেহাতে বিনোদন বলতে আমাদের মাথায় একটাই আধুনিক প্ল্যাটফর্মের কথা মনে পড়ে সেটি হল সোশ্যাল মিডিয়া। হ্যা এই সোশ্যাল মিডিয়াই এখন আমাদের বিনোদন খেলাধুলা, গানবাজনা, সিনেমা, খবরাখবর প্রভৃতি আরও অনেক কিছু উপভোগ করার বিপুল ব্যাবহৃত এবং সহজ মাধ্যম হয়ে উঠেছে।

ছোটো থেকে বড়ো প্রায় সবার হাতেই এখন এই মাধ্যমটি পৌঁছে গেছে। এরই মধ্যে অনেক ভিডিও ভাইরাল হচ্ছে সোশ্যাল মিডিয়া, সাম্প্রতিক অনেক ভিডিওর সাথে একটি সাপ ধরার ভিডিও উঠে এসেছে। আর বর্তমানে ভিডিওটি ভাইরাল হতে দেখা যাচ্ছে।

সাপ মানেই অতি আত’ঙ্কের এক প্রাণী। প্রতি বছরই বিশেষত বর্ষার দিকে গ্রামে-গঞ্জে অনেক মানুষের মৃ–‘ত্যু হয় এই বি’ষধর সা’পের কা’ম’ড়ের ফলে। সব সাপ বিষাক্ত না হলেও সাপের প্রতি ভয় মানুষের জন্মগত।

মানুষ সা’পকে ভ’য় পেলেও, ভয় আর ভ’ক্তি দিয়ে মা মনসার পূজা করে। দেবাদিদেব মহাদেবের গলাতেও দেখা যায় সাপ। এবার সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হতে দেখা গেল এক সবুজ রঙের সাপকে। সাপটি দেখতে বেশ সুন্দর।

চেহারাগত দিক থেকে অন্যান্য সাপেদের থেকে একেবারেই আলাদা ধরনের এই সাপটি দেখতে সুন্দর হলেও সাপটি কিন্তু ভীষণ তেজী প্রকৃতির।সব সময় যেন একেবারে আক্রমণাত্মক ভঙ্গিতে দেখা গিয়েছে এই বিশেষ প্রকৃতির সাপটিকে।

“নাগ লোক” নামক একটি ইউটিউব চ্যানেল থেকে পোস্ট করা ভিডিওতে আদ্যোপান্ত সবুজ রঙের এক সাপের খোঁজ মিলল। ভিডিওটির প্রথমে দেখা গিয়েছে, গৃহস্থের বাড়িতে একেবারে বেড রুমের মধ্যে ঢুকে গিয়েছে সাপ।

তাকে ঘর থেকে বের করার জন্য ডেকে আনা হয়েছে জনৈক সর্প বিশারদ বা সাপ ধরতে বিশেষজ্ঞ এক ব্যক্তিকে। সাপ ধরতে আসা ওই ব্যক্তি একটি স্টিলের লাঠি দিয়ে সাপটিকে তাড়া করলে জানালার গা বেয়ে সাপটি একেবারে ঘরের মেঝেতে এসে পড়ে।

তৎক্ষণাৎ আর দেরি না করে, ওই ব্যক্তি সাপটিকে করায়ত্ত করে ফেলেন। এরপর সাপটি বারবার ওই ব্যক্তিকে ছোবল মারতে উদ্যত হয়। কিন্তু নিজের কৌশলে সাপটির হাত থেকে রক্ষা পেলেন সাপ ধরতে আসা অভিজ্ঞ ব্যক্তি।

তবে এই সাপটির চেহারা অন্যান্য সাপেদের থেকে বেশ খানিকটা অন্যরকম। এর নাম “গ্রীন ভাইন স্নেক”। সাপটির সারা শরীর অর্থাৎ পৃষ্ঠদেশ সবুজ কালো আর সাদা রঙের মাছের আঁশের মতো ছোপ দেওয়া।

আর গলার দিক থেকে লেজের দিক পর্যন্ত,‌ হালকা সবুজ অর্থাৎ কচি কলাপাতা রঙের আবরণে ঢাকা। এরকম সাপ পৃথিবীতে খুব কমই দেখা যায়। সাপ ধরতে আসা ওই ব্যক্তি জানান, এই সাপ আক্রমণাত্মক ভঙ্গিতে থাকলেও, এর কোন বিষ দাঁত নেই।

তাই বাড়িতে সবুজ রঙের এই সাপ দেখতে পেলে মেরে ফেলার কোন কারণ নেই। সাপটির যখন কোন পশু পাখি মানুষের জন্য বা শত্রুর আগমন ঘটে, তখন এই সাপ রেগে গিয়ে মুখ খুলে হা করে আক্রমণাত্মক ভঙ্গিতে বসে থাকে। বিশেষ প্রকৃতির এই সাপটির কোন ফণা নেই।

সরু সুতোর ফিতের মত লিকলিকে এই সাপটি। “নাগ লোক” নামক একটি ইউটিউব চ্যানেল থেকে পোস্ট করা এই ভিডিওটি কার্যত ভাইরাল হয়ে গিয়েছে ইউটিউবে। ইতিমধ্যে ৫৮ হাজার মানুষ ভিডিওটি দেখে নিয়েছেন। একই সঙ্গে হাজার খানেক লাইক পড়েছে ভিডিওটিতে।

About admin

Check Also

১৩ জ’ন স্ত্রী’কে এ’কসাথে গ’র্ভবতী বা’নিয়ে বি’শ্বরেকর্ড ক’রলেন স্বা’মী

বহুবিবাহ প্রথা ভারতে বহু বছর আগে ছিল, যেখানে একজনের একাধিক স্ত্রী থাকতো যদিও কিছু কিছু …

Leave a Reply

Your email address will not be published.