কে হবেন আ.লীগের পরবর্তী সাধারণ সম্পাদক?জানালেন প্রধানমন্ত্রী

দেশের বড় রাজনৈতিক দল আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে আসছে বড় পরিবর্তন। যে কারণে কে হচ্ছেন নতুন সাধারণ সম্পাদক- এমন প্রশ্ন ক্ষমতাসীন দলের চায়ের টেবিলে কমন প্রশ্ন। সাধারণ সম্পাদক পদ নিয়ে রয়েছে নানান আলোচনা। টানা দুবার দায়িত্ব পালন করছেন ওবায়দুল কাদের।

টানা তিনবার সাধারণ সম্পাদক রাখার নজির আওয়ামী লীগে নেই। পাশাপাশি ওবায়দুল কাদেরের শারীরিক অবস্থাও বেশ খারাপ। এমত অবস্থায় এই বড় দলের গুরুত্বপূর্ণ পদটি কে ধরতে যাচ্ছেন তা নিয়ে আ.লীগ মহলে চলছে আলোচানা। তবে এখনই নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছেনা কিছু।

সাধারণ সম্পাদক পদের জন্য আলোচনায় যারা:-দলটির নেতাকর্মীদের আলোচনায় বেশ কয়েকটি নাম উঠে আসছে। তারা হলেন প্রেসিডিয়াম সদস্য কাজী জাফর উল্যাহ, ড. আব্দুর রাজ্জাক, জাহাঙ্গীর কবির নানক ও আব্দুর রহমান।

এছাড়াও টানা তিনবারের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং বেশ কয়েকবার ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করা মাহবুবউল আলম হানিফের নামও আসছে জোরালোভাবে। যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ডা. দীপু মনি, কৃষিবিদ আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম ও ড. হাছান মাহমুদও আছেন সাধারণ সম্পাদক হওয়ার আলোচনায়।

তবে আওয়ামী লীগের রেওয়াজ হচ্ছে নতুন সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নাম প্রস্তাব করা হয় কাউন্সিলে। আর এটি হ্যাঁ/না ভোটে পাস হয়। যে কারণে প্রস্তাবনার ওপর নির্ভর করছে, কে হচ্ছেন আগামীর সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক। এছাড়াও বেশ কয়েকটি পদে রদবদলসহ নতুন যুক্ত হবেন ৮-১০ জন।

৬৪টি জেলা ও ১২টি সিটি করপোরেশনসহ আওয়ামী লীগের মোট সাংগঠনিক জেলা কমিটি ৭৮টি। এসব জেলার আওতায় ৬২২টি উপজেলা কমিটি, ৫ হাজার ৬৪৩টি ইউনিয়ন কমিটি ও ৪৩ হাজার ৫৯৬টি ওয়ার্ড কমিটি রয়েছে।

দেশের বড় রাজনৈতিক দল আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে আসছে বড় পরিবর্তন। যে কারণে কে হচ্ছেন নতুন সাধারণ সম্পাদক- এমন প্রশ্ন ক্ষমতাসীন দলের চায়ের টেবিলে কমন প্রশ্ন। সাধারণ সম্পাদক পদ নিয়ে রয়েছে নানান আলোচনা। টানা দুবার দায়িত্ব পালন করছেন ওবায়দুল কাদের।

টানা তিনবার সাধারণ সম্পাদক রাখার নজির আওয়ামী লীগে নেই। পাশাপাশি ওবায়দুল কাদেরের শারীরিক অবস্থাও বেশ খারাপ। এমত অবস্থায় এই বড় দলের গুরুত্বপূর্ণ পদটি কে ধরতে যাচ্ছেন তা নিয়ে আ.লীগ মহলে চলছে আলোচানা। তবে এখনই নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছেনা কিছু।

সাধারণ সম্পাদক পদের জন্য আলোচনায় যারা:-দলটির নেতাকর্মীদের আলোচনায় বেশ কয়েকটি নাম উঠে আসছে। তারা হলেন প্রেসিডিয়াম সদস্য কাজী জাফর উল্যাহ, ড. আব্দুর রাজ্জাক, জাহাঙ্গীর কবির নানক ও আব্দুর রহমান।

এছাড়াও টানা তিনবারের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং বেশ কয়েকবার ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করা মাহবুবউল আলম হানিফের নামও আসছে জোরালোভাবে। যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ডা. দীপু মনি, কৃষিবিদ আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম ও ড. হাছান মাহমুদও আছেন সাধারণ সম্পাদক হওয়ার আলোচনায়।

তবে আওয়ামী লীগের রেওয়াজ হচ্ছে নতুন সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নাম প্রস্তাব করা হয় কাউন্সিলে। আর এটি হ্যাঁ/না ভোটে পাস হয়। যে কারণে প্রস্তাবনার ওপর নির্ভর করছে, কে হচ্ছেন আগামীর সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক। এছাড়াও বেশ কয়েকটি পদে রদবদলসহ নতুন যুক্ত হবেন ৮-১০ জন।

৬৪টি জেলা ও ১২টি সিটি করপোরেশনসহ আওয়ামী লীগের মোট সাংগঠনিক জেলা কমিটি ৭৮টি। এসব জেলার আওতায় ৬২২টি উপজেলা কমিটি, ৫ হাজার ৬৪৩টি ইউনিয়ন কমিটি ও ৪৩ হাজার ৫৯৬টি ওয়ার্ড কমিটি রয়েছে।

About admin

Check Also

লুঙ্গি ধরে টান দেয়ায় শ্যালিকাকে মেরে ঝুলিয়ে রাখে নতুন দুলাভাই

এবার কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীর রাখানায় খুশি হত্যা ঘটনায় নতুন বর (জেঠাতো বোনের স্বামী) আব্দুল গনিকে গ্রেপ্তার …

Leave a Reply

Your email address will not be published.