ব্রেকিং নিউজঃ দলের ভরাডুবির পর গুঞ্জন উঠেছে মাশরাফিকে দলে ফেরানোর

হারের বৃত্ত থেকে বের হয়ে আসতে পারছে না বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। পাকিস্তানের কাছে টি-টোয়েন্টি সিরিজে হোয়াইটওয়াশের পর এবার টেস্ট সিরিজও শুরু করেছে হার দিয়ে।বাংলাদেশের হারে চোখ রাঙানি দিচ্ছে জেনেও মুমিনুল হকের দলকে সমর্থন দিতে জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে এসেছিলেন দেশের আইকনিক সমর্থক–টাইগার শোয়েব।

বাংলাদেশ–বাংলাদেশ গর্জনে গ্যালারিতে বসে উৎসাহ–উদ্দীপনা দিয়ে গেছেন সারাক্ষণ। পাকিস্তান যখন সহজেই জয়ের বন্দরে পৌঁছছে, তখনই পূর্ব গ্যালারিতে পাওয়া গেল টাইগার শোয়েবকে।স্বাভাবিকভাবেই এ তরুণের কণ্ঠে ছিল হতাশা–ক্ষোভ। তিনি বলেন, একটা সময় পঞ্চপাণ্ডবের দিন ছিল, সেটিই ভালো ছিল।

মাশরাফি ভাইকে দলে নিয়ে আসা হোক। যারা জীবনে খেলা বুঝেনি, খেলা করেনি, তারাই যেন খেলছে। দেখে খুব খারাপ লাগে। মিরপুরে টি–টোয়েন্টি সিরিজে যে হতাশা দেখেছি, সেটি চট্টগ্রামেও সঙ্গী হলো।’বাংলাদেশ দলকে সমর্থন দিতে দেশ থেকে বিদেশে ঘুরে বেড়ানো টাইগার শোয়েব মনে করেন, এই দল দিয়ে হবে না, ‘দলের মধ্যে কিছু পরিবর্তন হওয়া দরকার।

ফিক্সড ডিপোজিট চাই না। ফিক্সড ডিপোজিট বন্ধ করতে হবে। যারা দুই ম্যাচে খারাপ খেলবে, তাদের বাদ দিতে হবে। যে ভালো খেলবে তিনি চাপ নিয়েও ভালো খেলবে। এখন তো ওয়ানডের খেলোয়াড় টেস্টে, টেস্টের খেলোয়াড় টি–টোয়েন্টিতে খেলা হচ্ছে।

তবে মিরপুরে দ্বিতীয় টেস্ট বাংলাদেশ ভালো কিছু করবে এমনটাই প্রত্যাশা টাইগার শোয়েবের। তিনি বলেন, ‘এখন দলের যে অবস্থা হতাশ হওয়ার কথা। এরপরও আমি আশাবাদী। দ্বিতীয় টেস্টে হয়তো সাকিব আল হাসান খেলবেন। তিনি খেললে বাংলাদেশ ঘুরে দাঁড়াবে। ’

হারের বৃত্ত থেকে বের হয়ে আসতে পারছে না বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। পাকিস্তানের কাছে টি-টোয়েন্টি সিরিজে হোয়াইটওয়াশের পর এবার টেস্ট সিরিজও শুরু করেছে হার দিয়ে।বাংলাদেশের হারে চোখ রাঙানি দিচ্ছে জেনেও মুমিনুল হকের দলকে সমর্থন দিতে জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে এসেছিলেন দেশের আইকনিক সমর্থক–টাইগার শোয়েব।

বাংলাদেশ–বাংলাদেশ গর্জনে গ্যালারিতে বসে উৎসাহ–উদ্দীপনা দিয়ে গেছেন সারাক্ষণ। পাকিস্তান যখন সহজেই জয়ের বন্দরে পৌঁছছে, তখনই পূর্ব গ্যালারিতে পাওয়া গেল টাইগার শোয়েবকে।স্বাভাবিকভাবেই এ তরুণের কণ্ঠে ছিল হতাশা–ক্ষোভ। তিনি বলেন, একটা সময় পঞ্চপাণ্ডবের দিন ছিল, সেটিই ভালো ছিল।

মাশরাফি ভাইকে দলে নিয়ে আসা হোক। যারা জীবনে খেলা বুঝেনি, খেলা করেনি, তারাই যেন খেলছে। দেখে খুব খারাপ লাগে। মিরপুরে টি–টোয়েন্টি সিরিজে যে হতাশা দেখেছি, সেটি চট্টগ্রামেও সঙ্গী হলো।’বাংলাদেশ দলকে সমর্থন দিতে দেশ থেকে বিদেশে ঘুরে বেড়ানো টাইগার শোয়েব মনে করেন, এই দল দিয়ে হবে না, ‘দলের মধ্যে কিছু পরিবর্তন হওয়া দরকার।

ফিক্সড ডিপোজিট চাই না। ফিক্সড ডিপোজিট বন্ধ করতে হবে। যারা দুই ম্যাচে খারাপ খেলবে, তাদের বাদ দিতে হবে। যে ভালো খেলবে তিনি চাপ নিয়েও ভালো খেলবে। এখন তো ওয়ানডের খেলোয়াড় টেস্টে, টেস্টের খেলোয়াড় টি–টোয়েন্টিতে খেলা হচ্ছে।

তবে মিরপুরে দ্বিতীয় টেস্ট বাংলাদেশ ভালো কিছু করবে এমনটাই প্রত্যাশা টাইগার শোয়েবের। তিনি বলেন, ‘এখন দলের যে অবস্থা হতাশ হওয়ার কথা। এরপরও আমি আশাবাদী। দ্বিতীয় টেস্টে হয়তো সাকিব আল হাসান খেলবেন। তিনি খেললে বাংলাদেশ ঘুরে দাঁড়াবে। ’

About admin

Check Also

বাংলাদেশের হারে ইমরুলের ‘মুচকি হাসি’, পরে বললেন ‘পেইজ হ্যাকড হয়েছিল’!

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজে অবিশ্বাস্য ব্যর্থতা। তবে সেই ভুলের গন্ডি থেকে বেড়িয়ে ওয়ানডে সিরিজে ঘুরে …

Leave a Reply

Your email address will not be published.