বিয়ের বাড়তি খাবার রেলস্টেশনের গরীব ক্ষুধার্থ মানুষদের দিলেন মহিলা, ভাইরাল ভিডিও

এই স্বার্থপর পৃথিবীতে এখনো কোথাও কোথাও মানবিকতা বেঁচে রয়েছে তার প্রমাণ আমরা মাঝেমধ্যেই পারি আরো একবার প্রমাণ হাতেনাতে পাওয়া গেল। আমরা অনেক সময় দেখে থাকি বিয়ের বাড়ির অনেক খাওয়ার অনেক সময় বেচেঁ যায় সেইগুলি বেশির ভাগ সময়ই নষ্ট হয় বা ফেলে দেওয়া হয়।

কিন্তু এবারে সেই ঘটনার উল্টো ছবি দেখা গেলো। এক মহিলা ভাইয়ের বিয়ের বেচেঁ যাওয়া খাওয়ার ভাগ করে দিলো রেললাইনের ধারের গরীব মানুষের মধ্যে।
চারিদিকে যখন এত এত খাওয়ার নষ্ট হচ্ছে তখন এরকম হাজারের মধ্যে থেকে এরকম মানুষ খুঁজে পাওয়া দুষ্কর।

ঘটনাটি ঘটেছে রানাঘাট স্টেশনে। ভাইয়ের বিয়ের উপলক্ষে রাতের বেচেঁ থাকা বাড়তি খাওয়ার রেললাইনের ক্ষুধার্থ মানুষ গুলোর মধ্যে ভাগ করে দিচ্ছে দিদি। আর সেই খাওয়ার তৃপ্তি করেই খাচ্ছেন মানুষ গুলো। যা দেখে চোখ একেবারে জুড়িয়ে যাচ্ছে।

বর্তমানে সেই ছবি ও ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘুরে বেড়াচ্ছে। খাবার নষ্ট করার আগে আমরা দুবার ভাবিনা যে সেই নষ্ট করা খাবারগুলো একেকটা মানুষের কাছে তাদের সারাদিনের পেট ভরার খাবার হতে পারে। আমরা কেবলই নষ্ট করি।

তাই খাবার নষ্ট করার আগে একটু ভেবে নেবেন যে এই আপনার নষ্ট করা খাবারটা একজনের মুখে কতটা হাসি ফোটাতে পারে।তাই নিজেদের বাসের অনুষ্ঠানের কখনো খাবার বেঁচে গেল এই গরীব মানুষ গুলোর সাথে ভাগ করে দেখবেন কতটা আনন্দ পাওয়া যায়। তাদের মুখের হাসি আপনাকে হাসতে সাহায্য করবে।

এই স্বার্থপর পৃথিবীতে এখনো কোথাও কোথাও মানবিকতা বেঁচে রয়েছে তার প্রমাণ আমরা মাঝেমধ্যেই পারি আরো একবার প্রমাণ হাতেনাতে পাওয়া গেল। আমরা অনেক সময় দেখে থাকি বিয়ের বাড়ির অনেক খাওয়ার অনেক সময় বেচেঁ যায় সেইগুলি বেশির ভাগ সময়ই নষ্ট হয় বা ফেলে দেওয়া হয়।

কিন্তু এবারে সেই ঘটনার উল্টো ছবি দেখা গেলো। এক মহিলা ভাইয়ের বিয়ের বেচেঁ যাওয়া খাওয়ার ভাগ করে দিলো রেললাইনের ধারের গরীব মানুষের মধ্যে।
চারিদিকে যখন এত এত খাওয়ার নষ্ট হচ্ছে তখন এরকম হাজারের মধ্যে থেকে এরকম মানুষ খুঁজে পাওয়া দুষ্কর।

ঘটনাটি ঘটেছে রানাঘাট স্টেশনে। ভাইয়ের বিয়ের উপলক্ষে রাতের বেচেঁ থাকা বাড়তি খাওয়ার রেললাইনের ক্ষুধার্থ মানুষ গুলোর মধ্যে ভাগ করে দিচ্ছে দিদি। আর সেই খাওয়ার তৃপ্তি করেই খাচ্ছেন মানুষ গুলো। যা দেখে চোখ একেবারে জুড়িয়ে যাচ্ছে।

বর্তমানে সেই ছবি ও ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘুরে বেড়াচ্ছে। খাবার নষ্ট করার আগে আমরা দুবার ভাবিনা যে সেই নষ্ট করা খাবারগুলো একেকটা মানুষের কাছে তাদের সারাদিনের পেট ভরার খাবার হতে পারে। আমরা কেবলই নষ্ট করি।

তাই খাবার নষ্ট করার আগে একটু ভেবে নেবেন যে এই আপনার নষ্ট করা খাবারটা একজনের মুখে কতটা হাসি ফোটাতে পারে।তাই নিজেদের বাসের অনুষ্ঠানের কখনো খাবার বেঁচে গেল এই গরীব মানুষ গুলোর সাথে ভাগ করে দেখবেন কতটা আনন্দ পাওয়া যায়। তাদের মুখের হাসি আপনাকে হাসতে সাহায্য করবে।

About admin

Check Also

নিজ হাতে পবিত্র কাবা পরিষ্কার করলেন সৌদি যুবরাজ

এবার সৌদি আরবের মক্কা নগরীর গ্র্যান্ড মসজিদের পবিত্র কাবা শরীফ নিজ হাতে পরিষ্কার করেছেন সৌদি …

Leave a Reply

Your email address will not be published.