‘মদ নিয়ে ধরা পড়ে, শাড়িটাও স্পন্সরে পরে- আমি সেই গ্রেডের নায়িকা না’: বর্ষা

মানুষ ভালো জিনিসের প্রশংসা কেনো করতে পারে না? ফুঁপিয়ে কাঁদতে কাঁদতে প্রশ্ন তুলেছিলেন চিত্রনায়িকা বর্ষা। এরপর কান্না থামিয়ে বলেছিলেন তাদের সিনমা ‘দিন দ্য ডে’ নিয়ে নেতিবাচক ও মিথ্যা কথা ছড়ানো হচ্ছে। এমন করলে আগামীতে হতে পারে তারা আর সিনেমাই বানাবেন না। নেত্রী দ্য লিডার হতে পারে তাদের শেষ সিনেমা।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় রাজধানীর মধুমিতা সিনেমা হল পরিদর্শনে গিয়ে বর্ষা উপস্থিত সাংবাদিকদের সামনে বলছিলেন এমনটি। এর একদিন পরই মিরপুরের সনি সিনেমা হলে উপস্থিত হয়ে সাংবাদিকদের সামনে বর্ষা বললেন, সব জায়গায় আমাদের ছবির শো বেশি। শো বেশি হওয়ায় দর্শকও বেশি থাকবে এটাই স্বাভাবিক।’

এই সময় বর্ষার কাছে জানতে চাওয়া হয় অনন্তর সব ছবিতেই তিনি কেনো নায়িকা? উত্তরে বর্ষা বলেন, কী টাইপের নায়িকা আপনাদের পছন্দ? সেই নায়িকা পছন্দ- যারা পেটে সন্তান নিয়ে কিংবা সন্তান প্রসব করে হাইডে (আড়ালে) থাকে?

নাকি যারা হিরোইন, ফেনসিডিল, মদ, গাঁজা নিয়ে ধরা পড়ে পুলিশের হেফাজতে থাকে? যেসব নায়িকা বিয়ের শাড়িটাও স্পন্সর নিয়ে পরে তাদের পছন্দ? তাদেরকে অনন্ত জলিলের সঙ্গে মানাবে? আমি সেই গ্রেডের নায়িকা না। আমি আমার জায়গায় আছি।’

‘দিন দ্য ডে’ ছবির মাধ্যমে দীর্ঘ দীর্ঘ আট বছর পর নতুন সিনেমা নিয়ে হাজির হয়েছেন অনন্ত-বর্ষা। ঈদের আজহার দিন ১১৫টি হলে মুক্তি পেয়েছে তাদের অভিনীত ‘দিন দ্য ডে’। মুক্তির পর থেকেই প্রতিদিন বিভিন্ন প্রেক্ষাগৃহে ঘুরে বেড়াচ্ছেন তারা। ইতোমধ্যে সিনেমাটি নিয়ে আলোচনা-সমালোচনা কম হয়নি।

তবে আলোচনা সমালোচনা যাই হোক ছবিটিতে বাংলাদেশের পুলিশের সোয়াত টিমের দারুণ সব কর্মযজ্ঞ দেখানো হয়েছে। বর্ষা বলেন, আমরা এখানে পুলিশের সোয়াত টিমকে হাইলাইট করেছি। সিনেমাটি যখন বিদেশে মুক্তি পাবে, তখন সেখানকার দর্শকরা দেখে বলবে- বাহ বাংলাদেশের সরকার, বাংলাদেশের পুলিশ এত বেশি সচেতন।’

‘দিন : দ্য ডে’ সিনেমায় অনন্ত জলিলকে আন্তর্জাতিক সংস্থার একজন পুলিশ কর্মকর্তার চরিত্রে দেখা যাবে। নানা সন্ত্রাসগোষ্ঠী দমনে অভিযানে অংশ নেবেন তিনি।
সিনেমাটি নির্মাণ করেছেন ইরানি পরিচালক মুর্তজা অতাশ জমজম।

বাংলাদেশ ছাড়াও ইরান, তুরস্ক ও আফগানিস্তানে সিনেমাটির শুটিং হয়েছে। ইরানের মুর্তজা অতাশ জমজম এবং বাংলাদেশের প্রযোজক অনন্ত জলিলের ‘এজে’ ব্যানারে নির্মিত হয়েছে সিনেমাটি। অনন্ত জলিল, বর্ষা ছাড়া আরও অভিনয় করেছেন ইরান ও লেবাননের অভিনেতারা।

মানুষ ভালো জিনিসের প্রশংসা কেনো করতে পারে না? ফুঁপিয়ে কাঁদতে কাঁদতে প্রশ্ন তুলেছিলেন চিত্রনায়িকা বর্ষা। এরপর কান্না থামিয়ে বলেছিলেন তাদের সিনমা ‘দিন দ্য ডে’ নিয়ে নেতিবাচক ও মিথ্যা কথা ছড়ানো হচ্ছে। এমন করলে আগামীতে হতে পারে তারা আর সিনেমাই বানাবেন না। নেত্রী দ্য লিডার হতে পারে তাদের শেষ সিনেমা।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় রাজধানীর মধুমিতা সিনেমা হল পরিদর্শনে গিয়ে বর্ষা উপস্থিত সাংবাদিকদের সামনে বলছিলেন এমনটি। এর একদিন পরই মিরপুরের সনি সিনেমা হলে উপস্থিত হয়ে সাংবাদিকদের সামনে বর্ষা বললেন, সব জায়গায় আমাদের ছবির শো বেশি। শো বেশি হওয়ায় দর্শকও বেশি থাকবে এটাই স্বাভাবিক।’

এই সময় বর্ষার কাছে জানতে চাওয়া হয় অনন্তর সব ছবিতেই তিনি কেনো নায়িকা? উত্তরে বর্ষা বলেন, কী টাইপের নায়িকা আপনাদের পছন্দ? সেই নায়িকা পছন্দ- যারা পেটে সন্তান নিয়ে কিংবা সন্তান প্রসব করে হাইডে (আড়ালে) থাকে?

নাকি যারা হিরোইন, ফেনসিডিল, মদ, গাঁজা নিয়ে ধরা পড়ে পুলিশের হেফাজতে থাকে? যেসব নায়িকা বিয়ের শাড়িটাও স্পন্সর নিয়ে পরে তাদের পছন্দ? তাদেরকে অনন্ত জলিলের সঙ্গে মানাবে? আমি সেই গ্রেডের নায়িকা না। আমি আমার জায়গায় আছি।’

‘দিন দ্য ডে’ ছবির মাধ্যমে দীর্ঘ দীর্ঘ আট বছর পর নতুন সিনেমা নিয়ে হাজির হয়েছেন অনন্ত-বর্ষা। ঈদের আজহার দিন ১১৫টি হলে মুক্তি পেয়েছে তাদের অভিনীত ‘দিন দ্য ডে’। মুক্তির পর থেকেই প্রতিদিন বিভিন্ন প্রেক্ষাগৃহে ঘুরে বেড়াচ্ছেন তারা। ইতোমধ্যে সিনেমাটি নিয়ে আলোচনা-সমালোচনা কম হয়নি।

তবে আলোচনা সমালোচনা যাই হোক ছবিটিতে বাংলাদেশের পুলিশের সোয়াত টিমের দারুণ সব কর্মযজ্ঞ দেখানো হয়েছে। বর্ষা বলেন, আমরা এখানে পুলিশের সোয়াত টিমকে হাইলাইট করেছি। সিনেমাটি যখন বিদেশে মুক্তি পাবে, তখন সেখানকার দর্শকরা দেখে বলবে- বাহ বাংলাদেশের সরকার, বাংলাদেশের পুলিশ এত বেশি সচেতন।’

‘দিন : দ্য ডে’ সিনেমায় অনন্ত জলিলকে আন্তর্জাতিক সংস্থার একজন পুলিশ কর্মকর্তার চরিত্রে দেখা যাবে। নানা সন্ত্রাসগোষ্ঠী দমনে অভিযানে অংশ নেবেন তিনি।
সিনেমাটি নির্মাণ করেছেন ইরানি পরিচালক মুর্তজা অতাশ জমজম।

বাংলাদেশ ছাড়াও ইরান, তুরস্ক ও আফগানিস্তানে সিনেমাটির শুটিং হয়েছে। ইরানের মুর্তজা অতাশ জমজম এবং বাংলাদেশের প্রযোজক অনন্ত জলিলের ‘এজে’ ব্যানারে নির্মিত হয়েছে সিনেমাটি। অনন্ত জলিল, বর্ষা ছাড়া আরও অভিনয় করেছেন ইরান ও লেবাননের অভিনেতারা।

About admin

Check Also

‘মন্তব্য কখনও গন্তব্য ঠেকাতে পারে না’ বলা সেই মামুন এখন পুলিশ হেফাজতে

প্রেম করে ছাত্রকে বিয়ের মাত্র ছয় মাসের মধ্যেই লাশ হলেন নাটোরের গুরুদাসপুরে আলোচিত সেই শিক্ষিকা …

Leave a Reply

Your email address will not be published.